কেরানীগঞ্জে রহস্যজনক খামার শ্রমিকের লাশ উদ্ধার

এ.এইচ এম সাগর: রাজধানীর উপকন্ঠ কেরানীগঞ্জের হযরতপুরে হযরত মিয়া (৩০) নামে এক খামার শ্রমিকের রহস্যজনক লাশ উদ্ধার করেছে কেরানীগঞ্জ মডেল থানা পুলিশ। শুক্রবার সকালে রাশেদুল ইসলাম সুমনের গরুর ফার্ম থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়।

স্থানীয়দের সুত্রে জানা যায়, নিহত হযরত মিয়ার (৩০) নিহতের গ্রামের বাড়ি টাঙ্গাইল জেলার সদর থানার আলোকদিয়া গ্রামে। তার পিতার নাম মৃত. কাসেম মিয়া। তিনি হযরতপুর ইউনিয়নের দক্ষিন ঢালীকান্দি গ্রামে জনৈক রাশেদুল ইসলাম সুমনের গরুর ফার্মে রাখালের চাকরী করতেন। তার সাথে কুদ্দুস (৩৮) , বাবলু (৪৪) নামে আরো দুজন কর্মচারী খামার দেখাশুনার কাজ করতো।

বৃহস্পতিবার রাতে প্রতিদিনের মতোই তিনজন একসাথে বিছানায় ঘুমাতে যায়। শুক্রবার সকালে ঘুম থেকে উঠে হযরত মিয়াকে বিছানায় না দেখে বাকি দুজন খুজতে শুরু করে। এরপরে তারা হযরত মিয়াকে মৃত অবস্থায় গরুর গোবরের মধ্যে পরে থাকতে দেখে। পরে তারা আশেপাশের লোকজনকে বিষয়টা জানায়। লোকজন এসে পুলিশে খবর দিলে পুলিশ এসে শুক্রবার দুপুরে লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট শেষে ময়না তদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ মিটফোর্ড হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করে। আশেপাশের লোকজনের ধারনা বাকি দুজন তাকে খুন করে লাশ গোবরে ফেলে রেখেছে।

কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ওসি শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের জানান, হযরতপুর ইউনিয়নের দক্ষিন ঢালী কান্দি গ্রামের একটি গো-খামার থেকে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। লাশের হাতে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। চিহ্নটি কিসের বোঝা যাচ্ছে না। চিহ্নটি ধারালো কোন ঘাস কাটার সময় হতে পাওে আবার ধস্তাধস্তিরও হতে পারে। ময়না তদন্ত রিপোর্ট আসলে বলা যাবে এটি হত্যা না অন্য কোন ঘটনা। নিহতের গ্রামের বাড়িতে খবর পাঠানো হয়েছে তার স্বজনরা আসলে থানায় মামলা করা হবে।

নিউজ ঢাকা

আরো পড়ুন,কেরানীগঞ্জে মোবাইল ব্যাংকিং অপব্যবহার রোধে এজেন্টদের নিয়ে থানা পুলিশের সমন্বয় সভা

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে [sharethis-inline-buttons]

Check Also

কেরানীগঞ্জে

কেরানীগঞ্জে শ্লীলতাহানীর অভিযোগে বডিবিল্ডার্স কারাগারে ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে নারী ও শিশু নির্যাতন মামলায় বডিবিল্ডার্স মো. …

error: Content is protected !!