কামরুল ইসলাম

বিজরে মাসে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিদের আরেকটি বিজয় হবেঃ কামরুল ইসলাম

খাদ্যমন্ত্রী এড. কামরুল ইসলাম বলেছেন, নির্বাচনের ৩ দিন আগে সিইসিরপদত্যাগ দাবী করা পাগলের প্রলাপ ছাড়া আর কিছু নয়। পরাজয় নিশ্চিত জেনেই পাগলেরপ্রলাপ বকছেন ঐক্যফ্রন্ট নেতারা।

বিজয়ের মাসে জনগন অগ্রগতির পক্ষে, উন্নয়নেরপক্ষে, মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তির আরেকটি বিজয় হবে ইনশাহআল্লা।

বুধবার বিকেল ৪ টার দিকে কেরানীগঞ্জ উপজেল পরিষদ প্রাঙ্গণে এক নির্বাচনী র‌্যালীর ও জনসভায়সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। খাদ্যমন্ত্রী আরো বলেন, তারা নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্র করছে।এ বিষয়ে সকলের সজাগ থাকতে হবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, কেরানীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক শাহীন আহমেদ, ঢাকা জেলা যুবলীগ সভাপতি শফিউল আজম খান বারকু, যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ইউসুফ আলী চৌধুরী সেলিম, কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের উপকমিটির সহসম্পক আালতাফ হোসেন বিপ্লব, শাক্তা ইউপি চেয়ারম্যান সালাহউদ্দিন লিটন, বাস্তা ইউপি চেয়ারম্যান আশকর আলী, হযরতপুরইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারন সম্পদক হাজি মোঃ আলাউদ্দিন, মডেল থানা যুবলীগসদস্য মেঃ নজিম উদ্দিন প্রমুখ। খাদ্যমন্ত্রী ও উপজেল চেয়ারম্যান শাহীন আহমেদ এরনেতৃত্বে নেতাকর্মিদের নিয়ে একটি র‌্যালী বের কর হয়। র‌্যলীটি উপজেলা চত্তর থেকে শুরু হয়ে, শাক্তা, রোহিতপুর,কলাতিয়া হয়ে ঘাটারচর এসে শেষ হয় ।

এ.এইচ.এম সাগর

আরো পড়ুন: কেরানীগঞ্জে ভুয়া পুলিশ।

ভুয়া পুলিশ সেজে ড্রাইভিং লাইসেন্স পরীক্ষা দিতে এসে আটক হয়ে শ্রীঘরে গেলেন দুই ব্যাক্তি। আটককৃত দুই ব্যাক্তি হচ্ছে :  ঢাকা জেলা ধামরাই থানার বালিয়া গ্রামের মোজাহার আলী খান মজলিসের ছেলে নাঈম আলী খান (৪৫) ও একই থানার চোহাট গ্রামের মোঃ মান্নান মিয়ার ছেলে মোঃ আইয়ুর মিয়া (৪৭)।

ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল মঙ্গলবার সকালে কেরানীগঞ্জের ইকুরিয়া বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটি (বিআরটিএ) অফিসের ড্রাইভিং লাইসেন্স পরীক্ষার হলে। পরে আটককৃতদের বিআরটিএর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ সাখাওয়াত হোসেন এর আদালতে হাজির করা হলে , তিনি আটককৃত দুই ভুয়া পুলিশের জবানবন্দীতে দুই মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।

কেরানীগঞ্জের ইকুরিয়া বিআরটিএ অফিসের ঢাকা জেলার সহকারী পরিচালক মোঃ রাফিক আল ইসলাম জানান, মঙ্গলবার সকালে ইকুরিয়া বিআরটিএ অফিসে ড্রাইভিং লাইসেন্স এর পরীক্ষা চলছিল। পরীক্ষা চলাকালীন সময়ে দুইজন পরিক্ষার্থী পুলিশের পোষাক পড়ে নিজেদের পুলিশ পরিচয় দিয়ে পরীক্ষার হলে বাড়তি সুযোগ সুবিধা গ্রহন করার জন্য পায়তারা করছে।

এসময় তাদের আচার আচরন দেখে আমাদের সন্দেহ হয়। ওই দুই পুলিশকে লিখিত পরিক্ষার পর তাদের ডেকে পুলিশের পরিচয়পত্র দেখাতে বললে তারা পরিচয়পত্র দেখাতে পারেন নাই। বরং তারা আমাদের সাথে উচ্চ বাচ্চ শুরু করেন, তখন আমরা তাদের পুলিশের কাছে তুলে দেওয়ার হুমকী দিলে তারা জানান, তারা ড্রাইভিং লাইসেন্স পরিক্ষার্থী। পুলিশের পোষাক পড়ে এসেছে যাতে পরীক্ষার মধ্যে তাদের পুলিশ ভেবে সুযোগ সুবিধা দেওয়া হয়।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

শোক দিবস উপলক্ষ্যে কোতোয়ালি থানা আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা

জাতীয় শোক দিবস উপলক আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের …

26 comments

  1. liquid tadalafil – generic tadalafil reviews buy tadalafil generic online

  2. best content, i love it

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!