মাইক্রোবাসের

নাটোরের লালপুরে সড়ক দুর্ঘটনা য় নিহত-১, আহত-৩

সজিবুল ইসলাম হৃদয়, নাটোর প্রতিনিধিঃ মঙ্গলবার (২৫ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় নাটোরের লালপুর উপজেলার গোপালপুর-বনপাড়া সড়কের ওয়ালিয়া সিপাইপাড়া নামক স্থানে সিএনজি’র নিয়ন্ত্রন হারিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কা লেগে  সড়ক দুর্ঘটনা য় এক যাত্রী নিহত ও তিন যাত্রী আহত হয়েছেন।

নিহত যাত্রীর নাম সাগর আহম্মেদ (৩৭)। নিহত ব্যাক্তি উপজেলার গোপালপুর খান শিবপুর গ্রামের বাসিন্দা ও রমজান খানের ছেলে।

স্থানীয় ও পত্যাক্ষদশী সূত্রে জানা , সন্ধ্যার দিকে একটি সিএনজি গোপালপুর থেকে ৫ জন যাত্রী নিয়ে বনপাড়া রওনা দেয়। ওয়ালিয়া সিপাইপাড়া নামক স্থানে একটি ট্রাককে ওভারটেক করতে গিয়ে সিএনজিটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের পাশের গাছের সাথে ধাক্কা লাগে। এ সময় সিএনজিতে থাকা এক স্কুল ছাত্রীসহ চারজন যাত্রী গুরুতর আহত হয়।

পরে স্থানীয়রা তাদেরকে উদ্ধার করে লালপুর হাসপাতালে নিলে সাগর আহম্মেদকে (৩৭) কর্তব্যরত ডাক্তার মৃত ঘোষণা করেন।

আহতরা হলেন উপজেলার গোপালপুর এলাকার নুরুল ইসলামের মেয়ে ও নর্থ বেঙ্গল সুগার মিলস হাই স্কুলের ৯ম শ্রেণীর ছাত্রী লোপা খাতুন (১৫), মহিসাখোলা গ্রামের আক্কাস আলীর স্ত্রী হাসিনা বেগম (৫২) ও তার ছেলে হাসান (৩৫)। এদের মধ্যে লোপাকে আশংকা জনক অবস্থায় রাজশাহী মেডিকেলে এবং সড়ক দুর্ঘটনা তে  বাকিরা লালপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

নিউজ ঢাকা ২৪।

আরো পড়ুন: শিশুর পেটে শিশু বাচ্চা।

ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার রহিমানপুর ইউনিয়নের গোয়ালপাড়া গ্রামের বাবুল রায়ের ১২ বছরের মেয়ে বিথিকা রায়। স্থানীয় মলানপুকুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী সে।

গত দশদিন আগে হঠাৎ করেই বিথিকার শারীরিক পরিবর্তন ঘটতে শুরু করে। তার পেট হঠাৎ করেই ফুলতে থাকে। এতে ঘাবড়ে যায় পরিবারের লোকজন। সবার ধারণা হয় সে হয়তো কারও দ্বারা ধর্ষণের শিকার হয়ে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েছে।

ভয় থেকেই ছুটে যায় ডাক্তারের কাছে। তবে স্থানীয় ডাক্তারের কাছে না গিয়ে যায় রংপুরের এক ডাক্তারের কাছে। চিকিৎসক প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে জানান বিথিকার পেটে বড় আকারের টিউমার রয়েছে। যা জরুরি ভিত্তিতে অপারেশন করা প্রয়োজন।

এদিকে পেশায় দিনমজুর বাবুল রায় রংপুরে অপারেশন করার সামর্থ্য না থাকায় মেয়েকে নিয়ে ঠাকুরগাঁও হাসান এক্স-রে ক্লিনিকে ভর্তি করে ডা. মো. নুরুজ্জামান জুয়েলের শরণাপন্ন হন। ডা. জুয়েল ঝুঁকিপূর্ণ অপারেশন হওয়ায় প্রথমে রাজী হননি। পরে বাবুলের আর্থিক অবস্থা বিবেচনা করে অপারেশনের সিদ্ধান্ত নেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

নরসিংদীতে খালেদা জিয়াকে বিদেশে পাঠিয়ে চিকিৎসার দাবিতে স্মারক লিপি প্রদান

হৃদয় এস সরকার, নরসিংদী: বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং তাকে বিদেশে পাঠিয়ে চিকিৎসার …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!