বিএনপি একটি সন্ত্রাসীদল ॥ আন্তর্জাতিকভাবে প্রমানিত হয়েছে—–খাদ্যমন্ত্রী

বিএনপি একটি সন্ত্রাসীদল তা আন্তর্জাতিক ভাবে কানাডার একটি আদালতে প্রমান হয়েছে। এ দলের চেয়ারপারসন দুর্নিতীর দায়ে এতিমদের টাকা মেরে জেলে আছেন আর ভাইস চেয়ারম্যান সাজাপ্রাপ্ত আসামী হয়ে বিদেশে অবস্থান করছেন। এরা নির্বাচনে আসতে ভয় পায় বলেই বিদেশীদের সাথে হাত মিলিয়ে আগামী নির্বাচনকে বানচাল করার চেষ্টা করছে।

দেশের মানুষ আজ সোচ্চার। তারা সব কিছু বোজেন। বর্তমানে শেখ হাসিনার হাত ধরে দেশে প্রচুর উন্নয়ন হয়েছে। শেখ হাসিনার হাত ধরেই আগামী ২০২৪ সালে আন্তর্জাতিকভাবে দেশ উন্নয়নশীল দেশের তালিকায় নাম লেখাতে যাচ্ছি। গতকাল (আজ) বুধবার সকালে আটি বাজার এলাকায় গনসংযোগ করে শেখ হাসিনা সরকারের উন্নয়নের লিফলেট বিতরন শেষে এক পথ সভায় খাদ্যমন্ত্রী এ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম এ কথা বলেছেন।

মন্ত্রী বলেন, দেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল। মাননীয় শেখ হাসিনার আমলে রাস্তা-ঘাট, স্কুল-কলেজ-মাদ্রাসা, হাট-বাজারসহ সকল বিভাগে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। এক সময় দেশে সাত কোটি মানুষের খাদ্যের চাহিদা মেটানোর জন্য বিদেশের সাহায্য নিতে হতো আর এখন ষোল কোটি মানুষের খাদ্যের চাহিদা পুরন করে আমরা বিদেশে রপ্তানী করতে পারি। কৃষকরা আজ বিনামূূল্যে সার পায়-নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ পায়, তাই কৃষিতে উৎপাদন বৃদ্ধি হয়েছে বলেই তা আজ সম্ভভব হয়েছে। কৃষকদের আজ সারের জন্য প্রান দিতে হয় না, বিদ্যুতের জন্য সেচ বন্ধ থাকে না, সবই সম্ভব হয়েছে শেখ হাসিনার জন্য।

 

আগে যেখানে ২৪ ঘন্টায় বিদ্যুৎ পাওয়া যেতো ৪ ঘন্টা আর এখন ২৪ ঘন্টায় ৪ মিনিট বদ্যুৎ বন্ধ থাকে কি সন্দেহ আছে। মন্ত্রী আরো বলেন, দেশের স্বাস্থ্য খাতে আজ ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। দেশে কমিউনিটি ক্লিনিক চালু হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মায়েদের কথা চিন্তা করে মাতৃত্বকালীন ভাতা চালু করেছেন, গর্ভকালীন ছুটি চালু করেছেন। শেখ হাসিনা একজন নারী প্রধানমন্ত্রী আগেও একজন ছিলেন নারী প্রধানমন্ত্রী। আগের প্রধানমন্ত্রী মায়েদেরে কথা কখনো চিন্তা করেনি। আজ মুক্তিযোদ্ধাদের ১০ হাজার করে ভাতা দিচ্ছে। বঙ্গবন্ধু সেটেলাইট-১ উৎক্ষেপনের পরে প্রযুক্তিক্ষেত্রে অনেক উন্নয়ন হয়েছে। আগামীতে মুক্তিযোদ্ধা ঘরে বসে মোবাইলের মাধ্যমে তাদের ভাতা পাবে। মন্ত্রী ডা. কামালের প্রতি আক্ষেপ করে বলেন, ডা. এক সময় জাতীর জনক বঙ্গবন্ধ শেখ মজিবুর রহমানের মন্ত্রী সভার পররাষ্ট্র মন্ত্রী ছিলেন, ছিলেন মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের লোক।

 

আর বর্তমানে তিনি একটি সন্ত্রাসী দলের সাথে ঐক্য করছেন। আগামী একাদশ নির্বাচনে দেশের মানুষ নৌকার বিজয় এনে শেখ হাসিনার সাথে দেশ উন্নয়নের ঐক্য গড়বেন। ওদের সাংগঠনিক শক্তি নাই। ওদের ঐক্য হয়েছে খুনিদের ঐক্য। ওদের ঐক্য সন্ত্রাসীদের ঐক্য। এটা ফলপ্রসু হবে না। পথ সভার আগে খাদ্যমন্ত্রী এ্যাড. মোঃ কামরুল ইসলাম আটিবাজার, আটি জয়নগর, আটি নয়াবাজার, কুললচর, ঘাটারচর, দাড়িপাড়া, আটি মীরকাদিম মাষ্টার গ্রামসহ আশেপাশের বেশ কিছু এলাকায় গনসংযোগ করে শেখ হাসিনা সরকারের উন্নয়নের লিফলেট বিতরন করে নৌকার পক্ষে ভোট চান।

 

পথ সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাবেক সদস্য ইউসুফ আলী চৌধুরী সেলিম, ঢাকা জেলা যুবলীগ সভাপতি শফিউল আযম খান বারকু, কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের উপকমিটির সহ সম্পাদক আলতাফ হোসেন বিপ্লব, ঢাকা জেলা আওয়ামীলীগ নেতা হাজি আবু সিদ্দিক, থানা আওয়ামীলীগ নেতা হাজি মোঃ আলাউদ্দিন, মোঃ আইয়ুব আলী, এ্যাড. এনামুল হক, মডেল থানা যুবলীগ নেতা আখের হোসেন আখি, মোঃ নাজিম উদ্দিন নাজিম, মোঃ রনি, মোকলেছ, টিপু, অনিক হোসেন পিন্ট, মোঃ মিন্টু,ছাত্রলগ নেতা মোঃ আলমগীর, স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা মোঃ কামাল আটি বাজার বরিক সমিতির সভাপতি হাজি মোঃ জাকিকর হোসেন, সহ প্রায় এক সহা¯্রাধীক নেতা কর্মি।

আরো পড়ুন: সংলাপ।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

কেরানীগঞ্জে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে চুরি; তিনদিনেও ঘটনাস্থলে যায় নি পুলিশ

ঢাকার কেরানীগঞ্জে ১০৮ নং পারজোয়ার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে চুরির ঘটনা ঘটেছে। সোমবার ১০ জানুয়ারী দিবাগত …

error: Content is protected !!