ভাসমান লাশ

নিখোঁজের একদিন পর বুড়িগঙ্গা নদী থেকে ব্যবসায়ীর ভাসমান লাশ উদ্ধার

নিখোঁজের একদিন পর বুড়িগঙ্গা নদী থেকে ব্যবসায়ীর ভাসমান লাশ উদ্ধার করেছে দক্ষিন কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ। শনিবার লাশ উদ্ধার শেষে সুরতহাল রিপোর্ট করে ময়না তদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ মিটফোর্ড হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করেছে পুলিশ।

নিহতের নাম মোঃ শাহনেওয়াজ শানু (২৬)। সে রাজধানীর চকবাজার থানাধিন ২৬৫/জে এন সাহা রোডের মৃত শাজাহান মিয়ার একমাত্র ছেলে। নিহত শানু ঢাকার মৌলভী বাজার এলাকায় বেবী ফুডসের ব্যবসা করতেন। সেখানে বিসমিল্লাহ স্টোর নামে তার একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রয়েছে।
নিহতের বড় ভগ্নিপতি মোঃ সোহেল জানান, নিহত শানু পাঁচ বোনের একমাত্র ভাই ছিল।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান থেকে বের হয়ে আর বাড়ি ফিরে আসেন নাই। সে থেকে নিখোঁজ রয়েছে শানু। সারারাত তাকে বিভিন্ন আত্মীয় স্বজনদের বাড়িসহ সাম্ভব্য স্থানে খোজাখুজি করে না পেয়ে পরদিন শুক্রবার তার বড় বোন সাকিনা বানু বাদী হয়ে চকবাজার থানায় একটি সাধারন ডায়রী করেন। আজ (গতকাল) শনিবার দক্ষিন কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশের ফোন পেয়ে ঘটনাস্থল পোস্তগোলা শশ্মানঘাট এলাকায় গিয়ে আমরা শানুর লাশ শনাক্ত কাির।

দক্ষিন কেরানীগঞ্জ থানার এস আই মোঃ সাক্রাতুল ইসলাম জানান, শনিবার সকালে স্থানীয় লোকজনের মাধ্যমে সংবাদ পাই যে পোস্তগোলা শশ্মানঘাট বরাবর নদীতে একটি অজ্ঞাত যুবকের লাশ ভাসছে। এ সংবাদের ভিত্তিত্বে আমি সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহত অজ্ঞাত যুবকের লাশ টানে তুলে নিয়ে আসি। লাশের পকেট থেকে দুটি মোবাইল ফোন পাওয়া যায়। সে ফোনের সিম অন্য একটি মোবাইলে সংযোগ দিয়ে ফোন করলে তার নাম ঠিকানা জানতে পারি।

এরপর লাশ সুরতহাল রিপোর্ট করে ময়না তদন্তের জন্য মিটফোর্ড হাসপাতাল মর্গে পাঠাই। তিনি আরো বলেন, যেহেতু তার বড় বোন রাজধানীর চকবাজার থানায় আগে একটি নিখোঁজ সাধারন ডায়রী করেছে সেহেতু লাশ উদ্ধারের পর সেখানে মামলা দায়ের করা হবে।

নিউজ ঢাকা ২৪।

Read more: naimar

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

কেরানীগঞ্জে বিভিন্ন খালের তীর ঘেষে অপরিকল্পিতভাবে গড়ে উঠেছে বহুতল ভবন

ঢাকার কেরানীগঞ্জে বিভিন্ন খালের তীর ঘেষে গড়ে উঠেছে একাধিক বহুতল ভবন। এসকল ভবনের অধিকাংশের নেই …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!