শরীরে আগুন

শরীরে আগুন দিয়ে কেরানীগঞ্জে গৃহবধূর আত্মহত্যা

কেরানীগঞ্জের তারানগর ইউনিয়নে শরীরে কেরোসিন ঢেলে এক গৃহবধু আত্মহত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। নিহতের নাম আমেনা বেগম। তিনি এক সন্তানের জননী। সোমবার নিহতের বাবার বাড়ি চন্ডিপুর গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, আড়াই বছর আগে পাশের গ্রামের ইসমাইল হোসেনের সাথে বিয়ে হয় নিহত আমেনার। বিয়ের কয়েকমাস পরে ইসমাইল পুনরায় বিদেশ চলে যায়।  এর কিছুদিন পরেই আমেনা বেগমের এক কন্যা সন্তান হয় । স্বামী বিদেশে থাকার কারনে  বেশির ভাগ সময় বাপের বাড়িতেই থাকতেন।

আমেনার বাবা ইকবাল হোসেন নিউজ ঢাকা কে জানান, তিনি যখন ভোর ৬টার দিকে ঘুম থেকে উঠেন তখন নামাযের ঘরের নিচ দিয়ে ধোয়া বের হতে দেখেন।  ঘরের দরজা ভিতর থেকেই বন্ধ ছিলো। পরে ঘরের দরজা ভেঙ্গে আমেনার পোড়া লাশ মেঝেতে পড়ে থাকতে দেখি।

এ ব্যাপারে কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ওসি শাকের মোহাম্মদ যুবায়ের বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এ সময় ঘরের কিছু কাপড়চোপড় পোড়া দেখতে পান। এছাড়া মৃতদেহের শরীর থেকে কেরোসিন তেলের গন্ধ পাওয়া যায়। এসব কারণে প্রাথমিকভাবে তাদের ধারণা করা হচ্ছে, আমেনা বেগম শরীরে কেরোসিন ঢেলে আত্মহত্যা করেছে। তার পরও মৃত্যুর সঠিক কারণ নির্ণয়ের জন্য লাশটি হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

আমেনা মারা যাবার সময় দেড় বছরের একটা শিশু সন্তান রেখে যায়।

 

এ এইচ এম সাগর।

নিউজ ঢাকা ২৪ ডটকম।

 

আরো পড়ুন : চাপাতার কিছু ব্যবহার

এক কাপ ধূমায়িত চা আমাদের শুধু চাঙাই করে না, সেই সঙ্গে এর রয়েছে ব্যতিক্রমী কয়েকটি ব্যবহার। শরীরের ক্লান্তি দূর করতে বহুকাল আগে থেকেই চায়ের ব্যবহার শুরু করেছে মানুষ। জেনে নিন সেগুলো:

গাছের সার

চা তৈরি শেষে পাতা বা ‘টি ব্যাগ’ ফেলে দেবেন না কখনো। ব্যবহার করা চায়ের পাতা গাছের গোড়ায় মাটির সঙ্গে মেশান, তাহলে সেই গাছের আর অন্য কোনো সারের প্রয়োজনই হবে না। আর ৩-৪টি ভেজা টি ব্যাগ যদি গাছের গোড়ায় রেখে দেন, তাহলে তা যে শুধু সারের প্রয়োজন মেটাবে তা নয়, গাছে পানিও দিতে হবে কম।

কাপড় রং

সাদা রঙের সুতি, সিল্ক বা উলের কাপড়ে রং করতে চান? তাহলে প্রথমেই চা পাতা পছন্দ করে নিন। কালো চা দিয়ে কাপড় হবে বাদামি রংয়ের। আর লাল জবা ফুলের চায়ে কাপড়ে আসবে লালচে ভাব। পছন্দমতো রংয়ের গরম চা’তে ১৫ মিনিট ধরে কাপড় ভিজিয়ে রাখুন, দেখবেন কী সুন্দর রং বদলে গেছে। এই রং হবে একেবারে স্থায়ী। শুধু মনে রাখতে হবে, ১০০ গ্রাম কাপড়ের জন্য ২৫ গ্রাম চায়ের পাতা প্রয়োজন।

জুতার দুর্গন্ধ দূর

চা তৈরির পর টি ব্যাগ শুকিয়ে নিয়ে জুতার ভেতরে রেখে দিন। চা জুতার দুর্গন্ধ শুষে নেবে। আর যদি পুদিনা পাতার চা হয়, তাহলে তো কথাই নেই! পুদিনার মিষ্টি গন্ধ বের হবে আপনার জুতা থেকে।

কার্পেট পরিষ্কার

প্রথমে কার্পেটের ওপর কয়েক চামচ গুড়ো চা পাতা ছড়িয়ে দিন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

লক ডাউনে ক্রেতাশূন্য কেরানীগঞ্জ গার্মেন্টস পল্লী ; দিশেহারা ব্যবসায়ীরা

লক ডাউনে হাজার কোটি টাকার লোকসানের আশংকা দোকান খুললেও ক্রেতাদের সমাগম নেই  ক্রেতা না থাকার …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!