খাদিজা

ছোট্র খাদিজা বাঁচার জন্য সকলের নিকট সাহায্য চায়

হৃদরোগে আক্রান্ত শিশু খাদিজা বাঁচতে চায়। খাদিজার বয়সী বাচ্চারা যখন হেসে খেলে নেচে গেয়ে পরিবারের সবাইকে আনন্দ দিয়ে পুরো বাড়ি মাতিয়ে রাখছে। সেই বয়সে বিছানায় শুয়ে মৃত্যুর প্রহর গুনছে খাদিজা।

ঝালকাঠি জেলার রাজাপুর উপজেলার উত্তমপুর গ্রামের জাকির হাওলাদারের দুই বছরের শিশু সন্তান খাদিজা। জন্মগতভাবে সে হৃদরোগে আক্রান্ত।

জীবন মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে থাকা খাদিজার চিকিৎসার ব্যায় বহন ভার করতে হিমশিম খাচ্ছে তার পরিবার। সন্তানের চিকিৎসা করাতে গিয়ে আর্থিকভাবে নিঃস্ব হয়ে গেছেন গার্মেন্টস শ্রমিক বাবা। মেয়ের অসুখের জন্য মাসের বেশির ভাগ সময়ই মেয়েকে নিয়ে এক হাসপাতাল থেকে অন্য হাসপাতাল ছুটা ছুটি করতে হয়। তাই এক সময় গার্মেন্টসের চাকুরীটা চলে যায়।

রাজধানী ঢাকার ন্যাশনাল হার্ট ফাউন্ডেশন হাসপাতাল, জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউটসহ বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা করিয়েছেন তার পরিবার। তবে চিকিৎসক জানিয়েছেন অপরেশন ছাড়া খাদিজার অবস্থার উন্নতি সম্ভব নয়। এজন্য প্রাথমকিভাবে তিন /চার লক্ষ টাকার প্রয়োজন। যা তার দরিদ্র পিতা ও পরিবারের পক্ষে বহন করা সম্ভব নয়।

১৬ কোটি মানুষের দেশে ফুটফুটে এই শিশুটি বিনা চিকিৎসায় মারা যাবে। আসুন মানবিক দিক বিবেচনা করে একটি পরিবারের স্বপ্ন বাঁচিয়ে রাখতে সবাই হাত বাড়াই।

ছোট্ট সোনামণির জীবন বাঁচাতে অর্থ সহায়তা করার জন্য সমাজের বিত্তবান ও দানবীর ভাই বোনদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন খাদিজার দরিদ্র পিতা ও কোরআনে হাফেজ নানা।

সাহায্য পাঠানোর ঠিকানাঃ-
এম,ডি আব্দুল করিম হাওলাদার।
ডাচ বাংলা ব্যাংক লিঃ
সঞ্চয়ী হিসাব নং ১২৭.১৫১.০২৯২১৮৪।

হাফেজ আব্দুল করিম (খাদিজার নানা)
০১৭৪৬৮৪২৭৩১ (বিকাশ, পার্সোনাল)।

প্রয়োজনেঃ জাকির হাওলাদার (খাদিজার বাবা) ০১৭২৮৬৪৪২৪৪

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

যশোরে এনজিও কর্মী পরিচয়ে শিশু চুরি

আক্তার মাহমুদ, যশোর: যশোরের শার্শার বাগআঁচড়ায় এনজিও কর্মি পরিচয় দিয়ে সরকারি অনুদানের প্রলোভন দেখিয়ে এক …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!