নেত্রকোনার দুর্গাপুরে প্রতিপক্ষের ছুরিকাঘাতে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর

 

পলাশ সাহা,নেত্রকোনা(দুর্গাপুর)প্রতিনিঃ

নেত্রকোনা জেলার দুর্গাপুরে ওষুধের দোকানে চেয়ারে বসা নিয়ে তর্কবিতর্কের জেরে প্রতিপক্ষের ছুরিকাঘাতে এক কলেজছাত্র নিহত হয়েছেন।এ সময় আহত হয়েছেন আরো দুইজন। আহতদের গুরুতর অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

নিহত যুবক আনোয়ার হোসেন (২৫) উপজেলার নাজিরপুর ইউনিয়নের আনন্দপুর গ্রামের মকবুল হোসেনের ছেলে। তিনি ময়মনসিংহে আনন্দমোহন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে এমএ পড়তেন।আহত দুইজন হচ্ছেন, নিহতের বাবা মকবুল হোসেন (৫৫) ও চাচাতভাই মনির হোসেন (২২)।বৃহস্পতিবার রাত পৌনে ১০টার দিকে উপজেলার চন্ডিগড় ইউনিয়নের বড়ইউন্দ বাজারে এই ঘটনা ঘটে।

দুর্গাপুর থানার ওসি শাহনুর এ আলম জানান, সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে বড়ইউন্দ বাজারে এক ওষুধের দোকানে চেয়ারে বসা নিয়ে আনোয়ারের সাথে একই গ্রামেরসোহেল মিয়ার(২২)তর্ক বাঁধে।পরে এর জেরে সোহেল, তার বাবা মরম আলীসহ তাদের আরো লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে আনোয়ারের উপর হামলা চালায়। খবর পেয়ে আনোয়ারের বাবা মকবুল হোসেন ও চাচাতভাই মনির হোসেন ঘটনাস্থলে গেলে তাদের উপরও হামলা চালায়।এ সময় ছুরিকাঘাতে গুরুতর আহত হন তিনজনই। স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে দুর্গাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠান।

সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক আনোয়ারকে মৃত ঘোষণা করেন। বাকি দুইজনের শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে থাকলে শংকাজনক অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

ওসি শাহনুর এ আলম আরো জানান, নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্যে নেত্রকোণা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। জড়িতদের ধরতে পুলিশ অভিযানে নেমেছে।থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

তিন জেলার মানুষ বিনামূল্যে পাবে চক্ষু চিকিৎসা

জবি প্রতিনিধি: পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁও ও মানিকগঞ্জ এই তিন জেলায় অসহায়দের বিনামূল্যে চক্ষুসেবা দিতে চারটি চক্ষু …

error: Content is protected !!