ঈশ্বরগঞ্জে আদালতের নিষেধাজ্ঞা ভঙ্গ চেয়ারম্যনের নেতৃত্বে দোকানে তালা

 

আশিক আল আদনান, উপজেলা প্রতিনিধি:ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে আদালত কর্তৃক নিষেধাজ্ঞা দিয়ে ১৪৪ধারা জারি করার পর ইউপি চেয়ারম্যান আদালতকে উপেক্ষা করে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে তালা দেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

অভিযোগে জানা যায়, উপজেলা মাইজবাগ ইউনিয়নের রাউলেরচর গ্রামের আব্দুল হাই (৬৫) এর সাথে সুলতান মিয়া গংদের জমাজমি নিয়ে বিরোধ চলছিলো। এ নিয়ে আব্দুল হাই ময়মনসিংহের বিজ্ঞ আদালতে ১০৭/১১৭ ধারায় ১৩৮/২০নং মামলা করেন। মামলায় মুচলেখা দিয়ে ফের জমাজমি দখলের চেষ্টা করলে। আদালতে ১৪৪ ধারায় আরো একটি মামলা করেন আব্দুল হাই।

ময়মনসিংহের বিজ্ঞ আদালতে মামলা নং ৮৯৬/২০, এর প্রেক্ষিতে ঈশ্বরগঞ্জ থানা পুলিশ ১৪৪ ধারা জারি করার পর মাইজবাগ ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার পারভেজ গত ৪ফেব্রুয়ারি সালিশের নামে নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে আব্দুল হাইয়ের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে তালা ঝুলিয়ে দিয়েছে। ফলে দোকানের মালামাল বিনষ্ট হচ্ছে। সাধারণ ক্রেতাদের কাছে পাওনা প্রায় ৮০হাজার টাকা অনাদায়ী বকেয়া থাকার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে।

স্থানীয় আব্দুল গণিসহ একাধিক ব্যক্তি জানান, চেয়ারম্যানসহ আরো কয়েকজন এসে ১৪৪ধারা ভঙ্গ করে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে তালা ঝুলিয়েদেয়। চেয়ারম্যানের এহেন আচরণে হতাশা প্রকাশ করেন স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিরা।

এব্যপারে মাইজবাগ ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার পারভেজ বলেন, সালিশ হওয়ার কথা রয়েছে। এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য দোখানে তালা দেওয়া হয়েছে। এই জমিতে ১৪৪ধারা জাবি করা হয়েছে এটা আমার জানা ছিলনা।

ঈশ্বরগঞ্জ ওসি আব্দুল কাদের মিয়া বলেন, কোন ব্যক্তির ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে তালা দিতে পারেনা। ১৪৪ধারা জারি থাকার পর তালা দেয়া যায় না।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

তিন জেলার মানুষ বিনামূল্যে পাবে চক্ষু চিকিৎসা

জবি প্রতিনিধি: পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁও ও মানিকগঞ্জ এই তিন জেলায় অসহায়দের বিনামূল্যে চক্ষুসেবা দিতে চারটি চক্ষু …

error: Content is protected !!