বাঘাপুর স্কুল এন্ড কলেজ

বাঘাপুর স্কুল এন্ড কলেজ প্রাক্তন ছাত্র সংসদের “৯৪ ব্যাচের” চতুর্থ বার্ষিকী মাহফিল সম্পন্ন

২২ ডিসেম্বর রোজ শুক্রবার বাঘাপুর স্কুল এন্ড কলেজ প্রাক্তন ছাত্র সংসদ এর সার্বিক সহযোগীতায় “১৯৯৪ ব্যাচের” উদ্যোগে চতুর্থ বার্ষিকী ওয়াজ ও দোয়ার মাহফিল এর কার্যক্রম সাফল্যের সহিত সম্পন্ন হয়েছে।

প্রধান অতিথি ছিলেন, নিজেকে “সু ক্যারিয়ার ও জিন্দা লাঠি ” হিসাবে পরিচয় দানকারী হাফেজ্জী হুজুরের সুযোগ্য খলিফা, বুয়েটের সাবেক প্রফেসর হামিদুর রহমান (দাঃ বাঃ)। তিনি হাফেজ্জী হুজুরের সাথে নিজের জীবনে ঘটে যাওয়া ঘটনা গল্পের আদলে শ্রোতাদের শুনান। এবং অনেক হেদায়েত মুলক নসীহত দান করেন। প্রফেসর সাহেবকে এক নজর দেখার জন্য বহু দূর দুরান্ত থেকে মানুষ এসে পেন্ডেলে অপেক্ষা করেন।

মাওলানা ফরিদউদ্দিন আহাম্মেদ আব্দুল্লাহপুরী বলেন, বর্তমান জামানায় তরুন সমাজ যেখানে নাচ, গান, নাটক সহ বিভিন্ন গুনাহের কাজে ব্যস্ত, তখন “বাঘাপুর স্কুল এন্ড কলেজ প্রাক্তন ছাত্র সংসদ” সদস্যরা বিশাল এক মাহফিল এর আয়োজন করে সওয়াবের কাজ করছে। একজন মানুষ ও যদি হেদায়াত প্রাপ্ত হয়ে আমল শুরু করে গুনাহের কাজ ছেড়ে দেয়।তার সমান সওয়াব আয়োজক কমিটিও পাবে। আগামীতে দুই দিন ব্যাপী মাহফিল করার জন্য কমিটির প্রতি আহ্বান জানান। তিনি বিশাল পেন্ডেল ও সু-শৃংখল পরিবেশ দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেন।

 

১৯৯৪ ব্যাচের সদস্য আলী হোসেন নিউজ ঢাকা টোয়েন্টি ফোরকে জানান, দুনিয়া থেকেতো একদিন চলেই যাবো। মৃত্যুর পর মানুষের সব আমল বন্ধ হয়ে যায় তাই আমল চালু রাখতে এই আয়োজন । ওয়াজ মাহফিল করে মানুষকে গুনাহের কাজ থেকে ফিরিয়ে এনে আমলের কাজে লাগাতে পারলেই আমরা সফল।তিনি বলেন, সকলের সহযোগিতা পেলে আমরা আজীবন এই মাহফিল চালিয়ে যাবো।

মোহাম্মদ উল্লাহ মাহমুদ।

নিউজ ঢাকা ২৪

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

বাবা হারালেন সাংবাদিক রাসেল

অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমের নিজস্ব প্রতিবেদক ও ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) সদস্য ইসমাইল হোসাইন রাসেলের …

One comment

  1. আমরা যারা সরাসরি শুনতে পারিনাই তাদের জন্য বয়ানের সারসংক্ষেপ তুলে ধরলে আমরাও কিছুটা উপকৃত হতাম। সুধু খবরে কিছুই জানতে পারলাম না। ওয়াজে কি কি বিষয় তুলে ধরেছেন কোন বিষয়ের উপর জোর দিয়ে বক্তব্য দিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!