ডিজিটাল মেশিন ও হার মানছে বিমান কর্মচারীদের জালিয়াতির কাছে

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের টার্মিনাল ভবনে স্থাপিত ডিজিটাল পাঞ্চ মেশিন ও হার মেনেছে বিমানের কর্মচারীদের অভিনব জালিয়াতির কাছে। দৈনিক এটেন্ডনেসের কাজে ব্যবহৃত মেশিনটিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে দিনের পর দিন কাজ না করেও বেতন নিয়ে যাচ্ছে কিছু কর্মচারী। সংশ্লিষ্ট সুত্র বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

সুত্র বলছে অফিসে না এসেও অনেকেই ডিজিটাল পাঞ্চ মেশিনে আইডি কাড (পরিচয়পত্র) পাঞ্চ করেন নিয়মিতোই।

এছাড়া ৮ ঘন্টা ডিউটি বাধ্যতামূলক হলেও অনেকেই ৪ ঘন্টার বেশি থাকেন  না। কেউ কেউ আবার ২ ঘন্টার বেশি ও থাকে না কর্মস্থলে।

জানা যায় , ১ জন ই জালিয়াতি করে ২০ জন কর্মীর আইডি কাড পাঞ্চ করেন ওই মেশিনে। বছরের পর বছর এভাবে জালিয়াতি করে আসলেও তাদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নিতে পারে নি কর্তৃপক্ষ।

তবে সম্প্রতি সিসি ক্যামেরায় ধরা পরে কর্মচারীদের এ জালিয়াতির ঘটনা। বিমান কর্মকর্তাদের নজরদারির সময় গোপন ক্যামেরায় ধরা খায় সংঘবদ্ধ সিন্ডিগেটের ২ সদস্য।

তারা হলেন-তারা হলেন-বিমানের জুনিয়র অ্যাকাউন্টস অফিসার বেলাল হোসেন তালুকদার (স্টাফ আইডি পি-৩৬১৯০) এবং মো. নাছির (স্টাফ আইডি সি-৪২৫)।
গোপন ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজ দেখে তাদের কে প্রাথমিক ভাবে বরখাস্ত করেছে বিমান বাংলাদেশ কতৃপক্ষ।
জানা যায়, গত ১৯ এপ্রিল  রাত ১০ টায় মো. নাছির ও  বেলাল হোসেন তালুকদার  সহ আরো ১ জন (ফুটেজে অষ্পষ্ট) মিলে প্রায় ২০ জন অনুপস্থিত কর্মচারীর আইডি কার্ড মেশিনে  পাঞ্চ করান।

যদিও এই বিশ জনের কেউ ই সেদিন অফিস করেন নি। কেউ কেউ এলেও ২ ঘন্টার বেশি ছিলেন না।

বিমান কতৃপক্ষের অবস্থাপনার সুযোগে কিছু অসাধু কর্মচারীরা এধরনের জঘন্য কাজ করছে বলে জানিয়েছে সুত্র।

সুত্র জানায় অভিযুক্ত যে দুই জন ধরা পড়েছে , তারা বলেছে – বিমান গ্রাহক সেবা বিভাগের পরিচালক আতিক সোবাহান ও মহাব্যবস্থাপক নুরুল ইসলাম হাওলাদারের তাদের কে এই  কাজ করার নির্দেশ দিয়েছেন।

আতিক সোবাহানের বিরুদ্ধে একের পর এক অনিয়ম এবং দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে বলে জানিয়েছে বিভিন্ন সুত্র।

খোঁজ নিয়ে দেখা যায়, নিয়মের বাইরে  গত ৫ ফেব্রুয়ারি এক সমন্বয় সভায় কর্মচারীদের ছাড় দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয় বিমান। ওভারটাইমের বিষয়ে এ ধরনের কোন নিয়ম আছে কিনা- তা জানার জন্য  আতিক সোবাহানকে কয়েক বার ফোন করেও পাওয়া যায়নি।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

মাধবপুরে পাটের ফলনে কৃষকের মুখে হাসি

  শেখ জাহান রনি, মাধবপুর (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি: আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় মাধবপুর উপজেলায় পাটের ফলন ভালো …

21 comments

  1. immaculate post, i like it

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!