রংপুর সিটি নির্বাচনে কাউন্সিলর পদে লড়ছেন তৃতীয় লিঙ্গের নাদিরা খানম

ইংরেজি ভাষা ও সাহিত্যে স্নাতকোত্তর করা উচ্চশিক্ষিত নাদিরা খানম সংরক্ষিত মহিলা ওয়ার্ডে মোবাইল ফোন প্রতিক নিয়ে লড়ছেন।

নাদিরা খানম এর প্রতিদ্বন্দ্বী রয়েছেন আরও সাতজন। আজ সকাল থেকে শুরু হয়েছে রংপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ভোটগ্রহণ। দিনাজপুরে বাড়ি হলেও তার স্থায়ী বাস এখন রংপুর নগরীর ২২ নম্বর ওয়ার্ডে।

তৃতীয় লিঙ্গের হলেও তিনি নারী হিসেবে ভোটার হয়েছেন।তাই সংরক্ষিত আসনে লড়ার সুযোগ পেয়েছেন। ২০০৭ সাল থেকে ছবিসহ ভোটার তালিকা প্রণয়ন শুরু পর ভোটারের লিঙ্গ পরিচয় ছিল নারী কিংবা পুরুষ। ২০১৩ সালের নভেম্বরে হিজড়াদের লিঙ্গ পরিচয়কে রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি দেওয়া হয়। এরপর ২০১৪ সালের জুলাইয়ে ভোটার নিবন্ধন বিধিমালায় সংশোধন আনে নির্বাচন কমিশন।

সেই থেকে নিবন্ধন ফরমে নারী, পুরুষ ও হিজড়া-তিন লিঙ্গ পরিচয় অন্তর্ভুক্ত করা হয়। বাংলাদেশের ইতিহাসে তৃতীয় লিঙ্গের প্রার্থী হিসেবে নাদিরা খানম ই প্রথম কোন সিটি কর্পোরেশন নিরর্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

তিনি নিউজ ঢাকা ২৪ কে বলেন,“শুধু তৃতীয় লিঙ্গই নয় সমাজের অবহেলিত, সুবিধাবঞ্চিত ও নির্যাতিতদের জন্য কাজ করতে চাই। পাশাপাশি আমার মতো যারা তৃতীয় লিঙ্গের মানুষ ওদেরকে সমাজের ভালো কাজে লাগানোর সুযোগ করে দিতেই আমার নির্বাচনে আসা।

নাদিরা খানমকে নিয়ে সাধারন ভোটারদের মধ্যে বেশ উৎসাহ উদ্বীপনা কাজ করছে।তাকে নিয়ে চায়ের দোকান থেকে শুরু করে পাড়া মহল্লায় আলোচনা হচ্ছে। নাদিরা একজন ভালো সংগঠক তৃতীয় লিঙ্গের উন্নয়নে প্রতিষ্ঠা করেন ‘ন্যায় অধিকার তৃতীয় সংস্থা’। বর্তমানে তিনি এই সংগঠনের সভাপতি।

নিউজ ঢাকা ২৪ ডট কম পরিবারের পক্ষ থেকে তার জন্য অনেক শুভ কামনা।

আরো পড়ুন : ভিক্ষুক নন তার পরেও যারা ভিক্ষা করেন

 

সম্পাদকীয় কলাম।
নিউজ ঢাকা ২৪

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

কীর্তিনাশার বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি

পল্লব সিয়াম: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত শরীয়তপুর জেলার শিক্ষার্থীদের সংগঠন- কীর্তিনাশার পক্ষ থেকে শরীয়তপুর সরকারি কলেজ …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!