টুইটারে ‘বিশেষ সুবিধাও’ হারাচ্ছেন ট্রাম্প

নির্বাচনে হারলে জানুয়ারিতে শুধু প্রেসিডেন্টের পদ নয়, টুইটারের বিশেষ সুবিধাও হারাতে হতে পারে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে। কারণ, হেরে গেলে  ট্রাম্পকে আর ‘সংবাদযোগ্য ব্যক্তিত্ব’ হিসেবে গণ্য করবে না বলে আগাম জানিয়ে রেখেছে টুইটার।

প্ল্যাটফর্মটির এ ধরনের ব্যক্তিকে শনাক্ত করার জন্য আলাদা নীতিমালা রয়েছে, যেমন আড়াই লাখের বেশি অনুসারী রয়েছে এমন নির্বাচিত কর্মকর্তাকে সংবাদযোগ্য ব্যক্তি হিসেবে ধরে তারা।

এ ধরনের অ্যাকাউন্টের বেলায় অ্যাকাউন্টকে স্থগিত বা নিষিদ্ধ করে না টুইটার।

প্রয়োজনে তাতে লেবেল জুড়ে দেয় মাইক্রোব্লগিং সাইটটি। এখন পর্যন্ত ট্রাম্পের অন্তত ১২টি টুইটে গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া নিয়ে প্রশ্ন তোলা হয়েছে।

‘সংবাদযোগ্য ব্যক্তিত্ব’ নীতি দ্বারা সুরক্ষিত বলে টুইটগুলোর ব্যাপারে তেমন কঠোর কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি টুইটার।

টুইটার জানিয়েছে, সাবেক কর্মকর্তারা এরকম সুবিধা পান না। সবার মতো একই নিয়ম মেনে চলতে হয় সাবেক কর্মকর্তাদের। কোনো টুইট নিয়ম ভাঙলে তা মুছে দেওয়া হবে। ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ান মন্তব্য করেছে, ট্রাম্প যেভাবে টুইটারের নিয়ম ভাঙেন, তা অব্যাহত থাকলে তার অ্যাকাউন্ট স্থগিত হয়ে যাবে।

টুইটার মুখপাত্র বলেন, টুইটার বিশ্ব নেতা, প্রার্থী ও জন কর্মকর্তাদের বেলায় বিশ্বাস করে যে, মানুষের পরিষ্কারভাবে তাদের কনটেন্ট দেখার অধিকার রয়েছে।

তিনি বলেন, এর মানে দাঁড়ায় আমরা সুনির্দিষ্ট কিছু টুইটে সতর্কতা ও লেবেল জুড়তে পারি, এনগেজমেন্ট কমিয়ে দিতে পারি।

এই নীতি কাঠামো বর্তমান বিশ্ব নেতা ও প্রার্থীদের জন্য প্রযোজ্য, সাধারণ নাগরিক ও তারা যখন পদে থাকেন না, সে সময়ের জন্য প্রযোজ্য নয়।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

সু চিকে স্বাগত জানাবে বাংলাদেশ

মিয়ানমারের সাধারণ নির্বাচনে বিজয়ী অং সান সু চির দল ন্যাশনাল লিগ ফর ডেমোক্রেসি (এনএলডি) বিপুল …

error: Content is protected !!