প্রেমে ব্যর্থ যুবকের ফেসবুক লাইভে আত্মহত্যা

‘কিছু মানুষ নিঃস্বার্থভাবে ভালোবাসে। তারা অনেক স্বার্থপর হয় প্রিয় মানুষটার বিষয়ে। সব কিছু দিয়ে তাদের পেতে চায়। আর আমি কোনোভাবে পাইনি। চলে যাচ্ছি না ফেরার দেশে। ভালোবেসো না ঠকে যাবে’- ফেসবুক ওয়ালে এই স্ট্যাটাস দেয়ার ঘন্টাখানেকের মধ্যে লাইভে এসে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা আলহাজ উদ্দিন (১৯) নামের যুবক। তিনি সিলেটের জকিগঞ্জ উপজেলার মানিকপুর ইউনিয়নের দরগাবাহারপুর গ্রামের লিয়াকত আলীর ছেলে। গত বছর আলমপুরস্থ সিলেট সরকারি কারিগরি ইন্সটিটিউট থেকে এসএসসি পাস করেন।
গতকাল বুধবার রাত ৯টার দিকে সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের মোগলাবাজার থানার আলমপুরস্থ ভাড়া বাসায় এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, প্রেমে ব্যর্থ হয়ে ক্ষোভে, দুঃখে ও হতাশা থেকে নিজেকে শেষ করে দিয়েছেন ওই যুবক। তবে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার ঘণ্টাখানেক আগে একটা মেয়েকে দায়ী করে যুবকটি আবেগঘন পোস্ট দিয়েছিলেন। কিন্তু মেয়েটির পরিচয় পাওয়া না গেলেও যুবকের সঙ্গে একটা ছবি মিলেছে। অনেকে যুবকের এ আত্মহত্যার ঘটনার আসল রহস্য উদঘাটন করে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন।
নিহতের চাচা আফজল হোসেন জানান, রাতে বাসায় নিহত আলহাজের মা ও বোন ছিলেন। ছেলেটি তার মাকে চা বানানোর কথা বলে রুমে চলে যায়। রুমের ভেতরে সাউন্ডবক্স দিয়ে গান বাজিয়ে আত্মহত্যা করায় কেউ কিছু টের পায়নি।
আত্মহত্যার কারণ তিনি বলতে চাননি। তবে ফেসবুক লাইভে ‘তুমি সুখে থাকো’ এ কথা বলে আত্মহত্যা করেছে, এমনটি নিহত আলহাজের চাচার দাবি।
এদিকে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ আত্মহত্যার লাইভ দৃশ্যটি তাৎক্ষণিক সরিয়ে নিয়েছে। তবে কয়েকজন ভিউয়ার্স জানিয়েছেন– আত্মহত্যার লাইভ চলাকালে সাউন্ডবক্সে গান বাজতে শুনতে পেয়েছেন তারা।
এ বিষয়ে সিলেট মোগলাবাজার থানার অফিসার ইনচার্জ সাহাবুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ফেসবুক লাইভে এসে এক যুবক আত্মহত্যা করেছেন। প্রাথমিকভাবে পুলিশের ধারণা প্রেমঘটিত কারণে এ ঘটনা ঘটেছে।
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের নামে চলছে রমরমা ব্যবসা

  আবদুল্লাহ আল মামুন যশোর জেলা প্রতিনিধিঃ বছর বছর ধরে ভুয়া মাদ্রাসার নাম করে চলছে …

error: Content is protected !!