জনসন অ্যান্ড জনসনের করোনা টিকার ট্রায়াল স্থগিত

যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক খ্যাতনামা ওষুধ উৎপাদক প্রতিষ্ঠান জনসন অ্যান্ড জনসনের করোনা টিকার ট্রায়াল সাময়িকভাবে স্থগিত করা হয়েছে। ট্রায়ালে একজন স্বেচ্ছাসেবক অসুস্থ হয়ে পড়ায় সোমবার এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

ভ্যাকসিন ক্যান্ডিডেটটির পরীক্ষা-নিরীক্ষার অংশ হিসেবে ৬০ হাজার স্বেচ্ছাসেবকের ওপর এর ট্রায়াল চালাচ্ছিল প্রতিষ্ঠানটি। এরমধ্যেই একজন অসুস্থ হয়ে পড়ায় ট্রায়াল স্থগিতের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

জনসন অ্যান্ড জনসন জানিয়েছে, একজন স্বেচ্ছাসেবক অসুস্থ হয়ে পড়ার ঘটনায় ট্রায়াল প্রক্রিয়া স্থগিত রাখতে গবেষকদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

প্রতিষ্ঠানটি বলছে, বড় ধরনের ক্লিনিক্যাল স্টাডিতে এ ধরনের অসুস্থতা ও দুর্ঘটনার মতো প্রতিকূল ঘটনা ঘটে থাকে।

স্বেচ্ছাসেবকের পরিচয় সংক্রান্ত গোপনীয়তা বজায় রাখা জরুরি বলে তার সম্পর্কে বিস্তারিত কিছু জানায়নি প্রতিষ্ঠানটি। এছাড়া তার অসুস্থতা সম্পর্কিত তথ্যাবলী আরও ভালোভাবে পর্যালোচনা করা হচ্ছে।

উদ্ভূত পরিস্থিতিতে আপাতত নতুন স্বেচ্ছাসেবক নিয়োগের অনলাইন নিবন্ধন স্থগিত রাখা হয়েছে। এছাড়া পুরো ট্রায়ালের ওপর নজর রাখতে একটি নিরপেক্ষ সংস্থাকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। সংস্থাটি স্বেচ্ছাসেবকদের নিরাপত্তা সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য ও পরিসংখ্যান নতুন করে খতিয়ে দেখবে।

বিশ্বজুড়ে প্রতিদিন করোনায় সংক্রমণ এবং মৃত্যু বাড়লেও এই রোগ নির্মূলে এখন পর্যন্ত রাশিয়া ছাড়া আর কেউ কার্যকর ভ্যাকসিন উদ্ভাবনের ঘোষণা দিতে পারেনি। তৃতীয় ধাপের ট্রায়ালের আগেই রুশ টিকাটি চূড়ান্ত অনুমোদন দেওয়ায় এর কার্যকারিতা নিয়ে সংশয় রয়েছে।

রাশিয়ার কথা বাদ দিলে ভ্যাকসিন তৈরির দৌড়ে শীর্ষে রয়েছে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও সুইডিশ ওষুধ কোম্পানি অ্যাস্ট্রাজেনেকার যৌথ উদ্যোগটি। ভ্যাকসিনটির দুই ধাপের ট্রায়াল শেষ হয়েছে। সেপ্টেম্বরের শুরুতে ট্রায়ালের তৃতীয় ধাপে ভ্যাকসিনের ডোজে এক নারী স্বেচ্ছাসেবকের শরীরে কিছু জটিল পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা গেলে ভ্যাকসিনটির পরীক্ষা সাময়িকভাবে স্থগিত করা হয়।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

এবার মেডিসিন ডেলিভারি ব্যবসায় উবার

উবার ইটসের দক্ষিণ আফ্রিকান ইউনিট তাদের ব্যবসার পরিধি বাড়িয়ে ওষুধের জগতে প্রবেশ করেছে। অঞ্চলটিতে তারা …

error: Content is protected !!