প্রেসক্রিপশন

প্রেসক্রিপশন এর ছবি তুলতে গিয়ে রুগীদের হয়রানি করছে বিক্রয় প্রতিনিধিরা

ঔষধ কোম্পানীতে নিজেদের কৃতিত্ব জাহির করতে ডাক্তার চেম্বার হতে বের হওয়া মাত্র রুগী ও স্বজনদের হাত থেকে প্রেসক্রিপশন টেনে নিয়ে ছবির মহড়া শুরু করেন বিক্রয় প্রতিনিধি গণ।রোগী ও স্বজনদের পথরোধ করে ছবি তুলে মুল্যবান সময় নষ্ট করায় চরম ক্ষোভ ও হতাশা প্রকাশ করেছেন ভুক্তভোগী রুগীর স্বজনরা।

ঢাকা মহানগরীর সব ধরনের হাসপাতাল থেকে শুরু করে ক্লিনিক এমনকি পাড়ার চেম্বারের সামনেও অসংখ্য প্রতিনিধিরা প্রতিনিয়ত জটলা পাকিয়ে দাঁড়িয়ে থাকেন।প্রেসক্রিপশন হাতে কাউকে বেরুতে দেখলেই ছবি তোলার জন্য হুমরি খেয়ে পরেন তারা । তাদের হাত থেকে মুমুর্ষ রুগীও রক্ষা পায় না।তাদের চালচলন ও ভাব দেখে অনেকে প্রতিষ্ঠানের ডাক্তার ও বড় কর্মকর্তা মনে করেন।অনেকে আবার মনে করেন রুগীদের সাহায্য করার জন্যই তারা দাঁড়িয়ে থাকেন।

হাসপাতাল সুত্রে জানা গেছে,সপ্তাহের নির্দিষ্ট দিনে নির্দিষ্ট সময়ে ঔষধ কোম্পানির বিক্রয় প্রতিনিধিরা ডাক্তারদের সাথে সাক্ষাৎ করার নিয়ম।অথচ এই নিয়মের তোয়াক্কা না করে বিভিন্ন সময় উপহার প্রাদানের নাম করে প্রতিনিধিরা চিকিৎসকদের সঙ্গে দেখা করে চিকিৎসা প্রদানে বাধা সৃষ্টি করছেন।

মিটফোর্ড হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসা শামীম হাসান আমাদের প্রতিনিধিকে জানান, আমি নিজে ডাক্তার দেখিয়ে বের হওয়া মাত্র কোন অনুমতি ছারাই পাঁচ/ছয় জন ঔষধ কোম্পানির প্রতিনিধি এগিয়ে এসে প্রেসক্রিপশন এর ছবি তোলা শুরু করেন।প্রচন্ড ভীরে আমি ক্লান্ত অথচ তারা আমার দশ মিনিট সময় ক্ষেপন করে আমাকে আরো কষ্টে ফেলেছে।তিনি বিরক্ত প্রকাশ করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি করেন।

এই ব্যপারে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ঔষধ কোম্পানির প্রতিনিধির কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,”পেশাগত কারনে আমরা প্রেসক্রিপশন এর ছবি তোলে থাকি।উর্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে রিপোর্ট পেশ করতে আমাদের কাজের প্রমান স্বরুপ এই ছবি প্রদর্শন করতে হয়।তাই রুগীদের কষ্ট হলেও আমাদের এই কাজ করতে হয়।কর্তৃপক্ষ আমাদের প্রেসারে না রাখলে আমারা এই কাজ আর করবোনা।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নাক,কান,গলা বিভাগের রেসিডেন্স চিকিৎসক ডাঃনাসির আহমেদ নিউজ ঢাকা ২৪ কে বলেন, “ঔষধ কোম্পানির প্রতিনিধিরা রুগীদের প্রেসক্রিপশন এর ছবি তুলে আমাদের সেবামুলক পেশা কে প্রশ্নবিদ্ধ করছেন।প্রতিটা রুগী চিকিৎসকদের কাছে নিজের গোপনীয়তা প্রকাশ করে থাকেন।তারা ছবি তুলে চিকিৎসকদের সততা ও রোগীর গোপনীয়তা নষ্ট করছেন।এছাড়া রুগীর সিমটম দেখে আমরা বুঝি কোন রুগীর কোন কোম্পানির ঔষধ কাজ করবে এই গোপনীয়তাটা তারা প্রকাশ করে ফেলে।। এই ভাবে ছবি তুলে তারা আমাদের ও বিতর্কিত করছে।  তিনি এসব হয়রানি মুলক কাজ বন্ধে ঔষধ কোম্পানির উর্ধতন কর্তৃপক্ষের সু-দৃষ্টি কামনা করেন।

<script async src=”//pagead2.googlesyndication.com/pagead/js/adsbygoogle.js”></script>
<script>
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({
google_ad_client: “ca-pub-3593848879504226”,
enable_page_level_ads: true
});
</script>

আরো পড়ুন : নবাব সিরাজ উদ দৌলা পার্ক

মোহাম্মদ উল্লাহ মাহমুদ।

নিউজ ঢাকা ২৪।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

নরসিংদীতে ঢিলেঢালাভাবে চলেছে লকডাউন

হৃদয় এস সরকার,নরসিংদী: প্রথম দিনে  নরসিংদীতে ঢিলেঢালাভাবে চলেছে লকডাউন। অনেকটা স্বাভাবিক সময়ের মতোই রাস্তায় চলাচল …

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!