ঈদ উদযাপন

দৌলতদিয়া ঘাটে শ্রমজীবী কর্মস্থল মুখী মানুষের ঢল

রাজধানীবাসী গ্রামের বাড়ি থেকে স্বজনদের সাথে ঈদ উদযাপন শেষে কাজে যোগ দিতে করোনা সংক্রমনের ঝুঁকি মাথায় নিয়ে রাজবাড়ীর জেলার গোয়ালন্দ উপজেলায় দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌ-পথে শ্রমজীবী মানুষের ঢল নেমেছে।

পাশাপাশি রয়েছে ব্যক্তিগত ছোট গাড়ির চাপ। সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, ২৭ মে রোজ মঙ্গলবার বেলা বাড়ার সাথে সাথে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌপথে ছিল কর্মস্থল শ্রমজীবী মানুষের ভীর। গন-পরিবহন বন্ধ থাকলেও জীবিকার তাগিদে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের হাজার হাজার শ্রমজীবী মানুষ মাইক্রো, প্রাইভেটকার, ব্যাটারি চালিত অটোবাইক, মোটরসাইকেল ও মাহেন্দ্রযোগে অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে দৌলতদিয়া ঘাটে এসে নদী পার হয়ে ঢাকাসহ আশ-পাশের বিভিন্ন জেলায় কর্মস্থলে যাচ্ছে।

পাশা-পাশি ঢাকা থেকেও আসছে অসংখ্য যাত্রী। করোনা দুর্যোগ কালে যাওয়া- আসার এই প্রতিযোগিতায় সামাজিক দূরত্ব মানা তো দূরের কথা বরং গাদাগাদি-পারাপারি করে ফেরিতে উঠে কর্মস্থলে যাওয়াই যেন এভারেস্ট জয়ের সার্থকতা। মাগুরা থেকে আসা গাজীপুরের একটি পোশাক কারখানায় কর্মরত মোহাম্মদ আলী বলেন, পরিবারের সাথে ঈদ করে ঢাকায় ফিরছি, পথিমধ্যে যানবাহন বদলে ছোট গাড়ীতে অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কর্মস্থলে যাবার উদ্দেশ্যে ঘাটে এসে পৌছেছি।

এমনিতেই করোনা সংক্রমনের ভয় রয়েছে তবুও পরিবারের সাথে ঈদ উদযাপন করতে পেরে ভাল লেগেছে। বিআইডব্লিউটিসি’র দৌলতদিয়া ঘাট শাখার সহকারী ব্যবস্থাপক মোঃ মাহবুব আলী সরদার জানান, এই নৌপথে ছোট-বড় ১৪টি ফেরি রয়েছে তবে পদ্মা নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ার কারণে সবগুলো ফেরি ঘাটের পল্টুনের র‌্যাম ডুবে যাওয়ায় ৭ টি ফেরি সচল রয়েছে। পল্টুনের র‌্যাম স্থানান্তরের কাজ চলছে খুব দ্রুতই কাজ শেষ হলে ফেরির সংখ্যা বাড়িয়ে দেয়া হবে।

নিউজ ঢাকা

আরো পড়ুন,নোয়াখালীতে মুজিব জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে এক মাসের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

প্রধান শিক্ষক এখন গরু খামারের কেয়ারটেকার

তাসনীমুল হাসান মুবিন,স্টাফ রিপোর্টারঃ ময়মনসিংহের ত্রিশালের আলহেরা একাডেমী এর প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান শিক্ষক আজিজুল হক …

error: Content is protected !!