জরুরি সেবার নাম্বারে ৪৭৩ বার ফোন,সপ্তম শেণীর ছাত্র আটক!

নাটোর প্রতিনিধিঃ ৩৩৩, ৯৯৯সহ সরকারি বিভিন্ন পরিসেবার নাম্বারে ফোন করে বলা হয় “আমি করোনায় আক্রান্ত, আমি রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে পালিয়ে এসেছি, আমাকে বাঁচান” শুধু একবার নয়, বিভিন্ন জরুরি সেবার নাম্বারে ৪৭৩ বার ফোন করে এই কথা বলা হয়। অবশেষে নাটোর শহরের আলাইপুর এলাকার আব্দুল করিম পরিচয়দানকারী করোনায় আক্রান্ত ওই ব্যক্তিকে অাটক করছে নাটোর জেলা পুলিশ।

এর অাগে, করোনামুক্ত নাটোরের জন্য বড় দুঃসংবাদ হিসেবে দেখা দেয়ায় ওই ব্যক্তিকে খুঁজতে মাঠে নামে পুলিশ। পুলিশ ওই ব্যক্তিকে উদ্ধারে তাদের সকল প্রক্রিয়া কাজে লাগায়। কিন্তু তার কোন হদিস করতে পারে না পুলিশ। করোনা আক্রান্ত হওয়ার সংবাদে সকলেই উদ্বিগ্ন হয়ে ওঠে। খবর পেয়ে উদ্ধারকারী দলের সহায়তায় স্থানীয় সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুলও মাঠে নামেন। কিন্তু সোমবার দিনভর শহরের বিভিন্ন এলাকায় সন্ধান করেও ফোনকারী সেই করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির সন্ধান করতে পারেনি পুলিশ। অবশেষে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তা নিয়ে তাকে খুঁজে পান নাটোর সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল হাসনাতের নেতৃত্বদানকারী পুলিশের একটি দল। পুলিশের ওই দলটি সোমবার রাত ৮টার দিকে সদর উপজেলার লক্ষিপুর ইউনিয়নের টলটলিয়া পাড়া থেকে মোবাইলসহ সেই ফোনকারীকে আটক করতে সক্ষম হয়। আটক সুমন ১৩/১৪ বছর বয়সের এক কিশোর। সে ওই গ্রামের নবী নুরের ছেলে। স্থানীয় একটি স্কুলে ৭ম শ্রেণির ছাত্র।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, এই কিশোর পাঁচটি সরকারি নম্বরে কল করে। সরকারি তথ্যসেবা নম্বর ৩৩৩–এ ৩১৬ বার, সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানে (আইইডিসিআর) ৬৩ বার, জাতীয় জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯–এ ২৩ বার, নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধে জাতীয় হেল্পলাইন ১০৯ নম্বরে ৩১ বার এবং করোনার বিষয়ে পরামর্শের জন্য আইইডিসিআরকে দেওয়া নম্বর ১০৬৫৫–এ ৪০ বার কলে করেছে ওই কিশোর। ৬ এপ্রিল থেকে সে ফোন করা শুরু করে

মঙ্গলবার দুপুরে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে লিখিত একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি পাঠিয়ে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয় যে, ওই ফোনটি ছিল প্রতারণা বা হয়রানিমূলক। সপ্তম শ্রেণির ওই ছাত্র নিছক মজা করার জন্যই সরকারের বিভিন্ন পরিসেবা নম্বরে ফোন করে। এ বিষয়ে আটক সুমনের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

এদিকে গণমাধ্যম কর্মীদের কাছে পাঠানো পুলিশের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে অভিভাবকদের অনুরোধ করা হয়েছে, আপনাদের সন্তানদের প্রতি খেয়াল রাখুন তারা যেন মোবাইলের অপব্যবহার করে এমন বিভ্রান্তমূলক তথ্য প্রদান না করে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে

Check Also

খুলনায় কাল থেকে সাতদিনের লকডাউন

মোঃআশরাফুল ইসলাম খুলনা সদর প্রতিনিধিঃ খুলনায় করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব বেড়েই চলছে, তার সাথে পাল্লা দিয়ে …

error: Content is protected !!