কেরানীগঞ্জে ছুরিকাঘাতে কিশোরের মৃত্যু

কেরানীগঞ্জে একই কারখানার শ্রমিক শামিম (২০) এর ছুরিকাঘাতে রমজান মিয়া (১৪) নামের এক কিশোর স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকার সাতদিন পর তার মৃত্যু হয়েছে।
নিহত রমজান কুমিল্লা মুরাদনগর থানার কুরবানপুর গ্রামের মমিন মিয়ার ছেলে। সে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানাধীন আগানগর আলীমউল্লাহ মার্কেটের ৬ষ্ঠ তলায় রাফিয়া থ্রেড ফ্যাক্টরিতে শ্রমিক হিসেবে কর্মরত ছিল।

সোমবার দুপুরে মিটফোর্ড হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। পরে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ ময়নাতদন্তের জন্য লাশ স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল (মিটফোর্ড) মর্গে প্রেরণ করে।

নিহতের ভাই সাকিব জানান, আমার ছোট ভাই রমজান ও শামীম দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের আগানগর একই ফ্যাক্টরিতে কাজ করতো। ৬ জুন রাতের খাবার শেষে শামীম রমজানকে নিয়ে ঘুরতে বের হয়ে শুভাড্যা খালপাড় চরকুতুব ব্রিজের উপর নিয়ে হঠাৎ করেই শামীম আমার ছোটভাই রমজানকে ছুরি দিয়ে আঘাত করে। এতে সে গুরুতর আহত হলে মিটফোর্ড হাসপাতালে ভর্তি করি। আজ সকালে সে মারা গেছে। আমি আমার ভাইয়ের হত্যাকারীর বিচার চাই।

দক্ষিন কেরানীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এঘটনায় নিহতের ভাই সাকিব বাদী হয়ে শামিমসহ অজ্ঞাতনামা দুই-তিন জনকে আসামি করে ১১জুন মারধরের মামলা দায়ের করে। আজ সকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রমজান মারা গেছে তাই এটি এখন মামলাটি হত্যা মামলায় পরিণত হবে। ঘটনায় জড়িত আসামিদের গ্রেপ্তারে চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে [sharethis-inline-buttons]

Check Also

কেরানীগঞ্জে বাড়ি দখল ও মারধোর করার অভিযোগে মানব বন্ধন

ঢাকার কেরানীগঞ্জে জোড়পূর্বক বাড়ি দখল ও মারধোর করার অভিযোগ এনে মো: ইয়াসিন নামে এক ব্যাক্তির …

error: Content is protected !!